হাইকোর্টের স্থগিতাদেশে থমকে গেল প্রাথমিকে নিয়োগ

ফের থমকে গেল প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়া। সম্প্রতি প্রাথমিকে প্রায় ১৬,৫০০ শিক্ষকপদে নিয়োগ প্রক্রিয়া শুরু করেছিল প্রাথমিক শিক্ষা সংসদ। কিন্তু কলকাতা হাইকোর্ট আপাতত ৪ সপ্তাহের জন্য অন্তর্বর্তী স্থগিতাদেশ জারি করল ওই নিয়োগে। ফলে বিধানসভা ভোটের আগে নিয়োগপ্রক্রিয়া শেষ হওয়ার সম্ভাবনা রইল না। সোমবার কলকাতা হাইকোর্টের বিচারপতি রাজর্ষি ভরদ্বাজ চাকরি প্রার্থীদের আবেদনের ভিত্তিতে এই নির্দেশ দেন।

বেশ কয়েক চাকরি প্রার্থী প্রাথমিকে নিয়োগ অস্বচ্ছতা নিয়ে প্রশ্ন তুলে হাইকোর্টের দ্বারস্থ হয়েছিলেন। তাদের অভিযোগ ছিল, প্রাথমিকে নিয়োগ প্রার্থীদের নিয়োগের  ক্ষেত্রে ম্যাসেজ পাঠিয়ে তাদেরকে আহ্বান জানানো হলেও লিখিত পরীক্ষায় তাদের প্রাপ্ত নম্বর কিংবা পরীক্ষায় মোট কত নম্বর পেয়েছেন এ সব বিস্তারিত কিছু না জানিয়ে শুধু নিয়োগ করার কথা বলা হচ্ছে। ফলে, কিসের ভিত্তিতে নিযোগ তা নিয়ে ধোঁয়াশার সৃষ্টি হয়েছে। তাই অবিলম্বে নিয়োগ প্রক্রিয়া স্থগিত করে সম্পূর্ণ ও বিস্তারিত মেধা তালিকা প্রকাশের আর্জি জানানো হয়।

এই আর্জির প্রেক্ষিতে সোমবার নিয়োগপ্রক্রিয়ায় অন্তর্বর্তীকালীন স্থগিতাদেশ জারি করে আদালত। সেই সঙ্গে চার আগামী সপ্তাহের মধ্যে এব্যাপারে প্রাথমিক শিক্ষা সংসদকে আদালতে হলফনামা জমা দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

অাদরতের সবুজ সংকেত পেয়ে যখন জোরকদমে প্রাথমেক নিয়োগ চরছিল তখন মাঝপথে সেই নিয়োগ প্রক্রিয়া স্থগিত হয়ে গেল। যদিও ইতিমধ্যে ১৬,৫০০ জন প্রাথমিক শিক্ষক পদের অনেকটাই পূরণ হয়ে গেছে।

অাদরতের সবুজ সংকেত পেয়ে যখন জোরকদমে প্রাথমেক নিয়োগ চরছিল তখন মাঝপথে সেই নিয়োগ প্রক্রিয়া স্থগিত হয়ে গেল। যদিও ইতিমধ্যে ১৬,৫০০ জন প্রাথমিক শিক্ষক পদের অনেকটাই পূরণ হয়ে গেছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *