Share on facebook
Share on twitter
Share on whatsapp
Share on email

আবারও খবরের শিরোনামে মালদার হরিশচন্দ্রপুর। এবার রাতের অন্ধকারে কাটমানি চাওয়ার অভিযোগে বিক্ষোভের মুখে যুব তৃণমূল নেতা ও বিজেপি পঞ্চায়েত মেম্বার

NBTV ONLINE DESK

NBTV ONLINE DESK

IMG-20210124-WA0012

সেখ সাদ্দাম, মালদাঃ আবাস যোজনার ঘর পাইয়ে দেওয়ার নাম করে কাটমানি নিয়েছেন তৃণমূল যুব কংগ্রেসের নেতা অভিযোগ উপভোক্তা অতুল দাসের। তারপর ওই যুব নেতা আবারো কাটমানির দাবিতে রাতের অন্ধকারে হাজির হয়েছিলে এক উপভোক্তার বাড়িতে। এই ঘটনাকে ঘিরে শনিবার রাতে ধুন্ধুমার কান্ড বাঁধলো মালদহের হরিশ্চন্দ্রপুর-১ নং ব্লকের বাইসা রামনগর এলাকায়।

ওই যুব নেতা কে ঘিরে শুধু বিক্ষোভ দেখানোই নয়, তাকে চরম হেনস্থা করেন বাসিন্দাদের একাংশ বলে অভিযোগ। খবর পেয়ে ছুটে আসেন স্থানীয় বিজেপি সদস্য। কিন্তু তিনিও বাসিন্দাদের ক্ষোভের মুখে পড়েন। ঘর পাইয়ে দেওয়ার নাম করে তিনিও কাটমানির দাবি করেছিলেন বলে অভিযোগ উপভোক্তাদের। কাটমানি নেওয়ার দাবি অবশ্য অস্বীকার করেছেন যুব তৃণমূল নেতা সোনু ভাস্কর। যদিও রাত দশটার সময় কেন ওই যুবনেতা এলাকায় গিয়েছিলেন তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন এলাকার বাসিন্দারা।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে আবাস যোজনার ঘর পাইয়ে দেওয়ার নাম করে অতুল দাস উপভোক্তার কাছে জোর করে দশ হাজার টাকা নিয়েছিলে। ওই উপভোক্তার নামে আবাস যোজনার ঘর বরাদ্দ হয়েছে। তিনি ঘর তৈরির কাজ শুরু ও করেছেন কিন্তু উপভোক্তার অভিযোগ এদিন রাতে তার বাড়িতে গিয়ে আরো দশ হাজার টাকা কাটমানি দাবি করেন সোনু। কিন্তু দশ হাজার টাকা দিলে উপভোক্তা কিভাবে ঘর তৈরীর কাজ সম্পন্ন করবেন। সেই প্রশ্ন তুলে টাকা দিতে নারাজ হন। তা নিয়ে শুরু হয় বচসা, চিৎকারে ছুটে আসে প্রতিবেশীরা। তারপরে বেধে যায় ধুন্ধুমার কান্ড, যুবনেতা রাতের অন্ধকারে কেন টাকা চাইতে এসেছেন সেই প্রশ্ন তুলে বিক্ষোভ দেখাতে থাকেন বাসিন্দারা। এমনকি তার মোবাইল ফোন কেড়ে নিয়ে তাকে আটকে রাখা হয়। ওই যুব নেতা কে ধাক্কাধাক্কি, চড়-থাপ্পড় মারা হয় বলে অভিযোগ।
শাসকদলের একাংশের বিরুদ্ধে কাটমানি চাওয়ার অভিযোগ নতুন কিছু নয় বলে কটাক্ষ বিরোধীদের। নির্বাচনের মুখে রাতের অন্ধকারে ওই যুবনেতা কাটমানি চাইতে গিয়েছেন এমন অভিযোগ সামনে আসায় অস্বস্তিতে পড়েছে শাসকদলীয় নেতৃত্ব। পাশাপাশি অস্বস্তিতে পড়েছে যুব সংগঠনও।
এদিকে যুবনেতার কাটমানির কান্ড সামনে আসতেই স্বাভাবিক ভাবেই কটাক্ষ করেছে বিরোধীরা।

সম্পর্কিত খবর