মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মনোনয়ন বাতিল করতে হবে, কমিশনের কাছে আবদার বিজেপির

 

নিউজ ডেস্ক : ভবানীপুর কেন্দ্রের উপনির্বাচনে তৃণমূল প্রার্থী মমতা বন্দোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে মনোনয়নপত্রে তথ্য গোপনের অভিযোগ তুলল বিজেপি। নির্বাচন কমিশনে এ নিয়ে বিজেপি অভিযোগ জানিয়েছে। ওই কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থী প্রিয়ঙ্কা টিবরেওয়ালের নির্বাচনী এজেন্ট অভিযোগ করেছেন, তৃণমূলপ্রার্থী মনোনয়নপত্রে তাঁর বিরুদ্ধে যে সব মামলা রয়েছে তার উল্লেখ করেননি।

 

মঙ্গলবার ভবানীপুরের তৃণমূল প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিলের দাবি তুলে কমিশনকে চিঠি দিয়েছেন বিজেপি প্রার্থী প্রিয়াঙ্কা টিবরেওয়ালের নির্বাচনী এজেন্ট সজল ঘোষ। অভিযোগপত্রে তিনি দাবি করেছেন, একাধিক থানায় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে অভিযোগ থাকা সত্ত্বেও তিনি নির্বাচনী হলফনামায় তা প্রকাশ করেননি। প্রসঙ্গত, ১৩ সেপ্টেম্বর অর্থাৎ গতকাল ছিল ভবানীপুর কেন্দ্রের মনোনয়ন জমা দেওয়ার শেষ দিন। তার অনেক আগে শুক্রবারই আলিপুর সার্ভে বিল্ডিংয়ে গিয়ে নিজের মনোনয়ন পত্র জমা দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। মঙ্গলবার স্ক্রুটিনির সময় তাঁর মনোনয়ন পত্রে ত্রুটির অভিযোগ তুলেছে বিজেপি।

 

ঘটনাচক্রে ২০২১ বিধানসভা নির্বাচনের সময় মমতা যখন নন্দীগ্রাম কেন্দ্রের প্রার্থী হলেন, তখনও একইভাবে তাঁর মনোনয়ন বাতিলের দাবি তুলেছিলেন বিজেপি প্রার্থী শুভেন্দু অধিকারী। কিন্তু কমিশনে সে অভিযোগ ধোপে টেকেনি। শুভেন্দু দাবি করেছিলেন, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নামে একটি সিবিআই মামলা ও অসমের ৫টি মামলা মিলিয়ে মোট ছ’টি মামলা আছে। পরে সিবিআই সূত্রে জানা যায়, শুভেন্দু যে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে মামলার কথা বলছেন, সেটা রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী নন। অন্য মমতা। সেসময় বিজেপি নেতার অভিযোগ স্পষ্টতই খারিজ করে দেয় নির্বাচন কমিশন।

 

মনোনয়ন জমা দেওয়ার পরে প্রিয়ঙ্কা টিবরেওয়াল জয়ের ব্যাপারে আত্মবিশ্বাসী বলেই জানিয়েছেন। তিনি বলেছেন, জয় নিয়ে তিনি আশাবাদী। তিনি মানুষের জন্য লড়াই করছেন। বিধানসভা নির্বাচনের পরে তৃণমূল খুনের খেলায় নেমেছে বলেও অভিযোগ করেছেন তিনি। তাঁর অভিযোগ এই সরকার খুনিদের সমর্থন করছে, এরই বিরুদ্ধে আওয়াজ তোলার ডাক দেন তিনি। এমনকি প্রিয়ঙ্কা টিবরেওয়ালকে বলতে শোনা যায়, বাংলা বাঁচাও, বাঙালি বাঁচাও স্লোগানকে সামনে রেখে লড়াই করবেন তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *